মিনি বিজ্ঞান ৯: বিজ্ঞান মতে মানুষের মৃত্যু কি জিনিস?



মিনি বিজ্ঞান ৯

বিজ্ঞান মতে মানুষের মৃত্যু কি জিনিস? 

উত্তরঃ হার্টের সাথে মৃত্যুর সম্পর্ক নেই। কৃত্রিম ভাবে রক্ত সাপ্লাই করলেই চলে। চেতনা থাকে কর্টেক্সে। ব্রেইনের সেরেব্র‍্যাল কর্টেক্সের নিউরন কোষগুলো মারা গেলে আমরা তাকে মৃত্যু বলি। কর্টেক্সের কানেকশনগুলো দেখে বুঝা যায় মানুষটা মৃত কিনা। একে বলে ব্রেইন ডেড। 

সাধারণত হার্ট বিট বন্ধ হয়ে ডাক্তাররা মৃত ধরে নেন, কারণ একটু পরেই ব্রেইন অক্সিজেনের অভাবে মারা যাবে। সেটা নাও হতে পারে। অনেক সময় ব্রেইন কোনভাবে অক্সিজেন ধরে রাখে। তীব্র ঠাণ্ডায় অনেক সময়ই হার্টবিট বন্ধ হলেও ব্রেইন চালু থাকে, পরে হার্ট বিট সচল করে মানুষকে আবার বাঁচিয়ে তোলা যায়। হার্টবিট বন্ধ হলে ডাক্তাররা একে বলে ক্লিনিক্যালি ডেড। 

ক্লিনিক্যালি ডেড থেকে মানুষ ব্যাক করতে পারে, অনেক মানুষই করে। এটা সত্যিকারের মৃত্যু না। ব্রেইন ডেড হচ্ছে আসল জিনিস। ব্রেইনের কর্টেক্সের কোষগুলো সব মারা গেলে, নিউর‍্যাল কানেকশনগুলো ধ্বংস হয়ে গেলে আপনি শেষ, আপনাকে আর কোনভাবেই বাঁচিয়ে তোলা যাবে না। 

খেয়াল করেন, ব্রেইনের কর্টেক্স ধ্বংস হয়ে গেলেও কিন্তু মোটর নিউরন কাজ করতে পারে, মেডুলা আপনার অঙ্গ প্রত্যঙ্গ গুলোকে সচল রাখতে পারে। কিন্তু আপনার চেতনা তখন ধ্বংস হয়ে গেছে। আপনি মৃত, আর কোনদিন জেগে উঠবেন না। 

বিস্তারিত আছে আমার বিজ্ঞানে অজ্ঞান বইটাতে। 

One thought on “মিনি বিজ্ঞান ৯: বিজ্ঞান মতে মানুষের মৃত্যু কি জিনিস?”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *